১৯ জুলাই, ২০১৯ || ৪ শ্রাবণ ১৪২৬

শিরোনাম
  রিফাত হত্যাকাণ্ড : রিশান ফরাজী ৫ দিনের রিমান্ডে        পানির ডুবে আছে গাইবান্ধা, অনাহারে অর্ধাহারে ৪ লাখ মানুষ        হুমায়ূন আহমেদের ৭ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ        লন্ডনের পথে প্রধানমন্ত্রী     
৫২

‘​রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধান না হলে অস্থিতিশীল হবে পুরো এশিয়া’

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৫ জুন ২০১৯  

পুরোনো ছবি

পুরোনো ছবি

রোহিঙ্গা পরিস্থিতি এখন শুধু বাংলাদেশের সমস্যা নয় উল্লেখ করে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ বলেছেন, “এটা যদি সমাধান না করা হয়, তাহলে পুরো এশিয়াকে অস্থিতিশীল করে তুলবে।”

গতকাল শনিবার তাজিকিস্তানের রাজধানী দুশানবেতে নাভরুজ প্যালেসে কনফারেন্স অন ইন্টারেকশন অ্যান্ড কনফিডেন্স বিল্ডিং মেজারস ইন এশিয়ার (সিআইসিএ) পঞ্চম সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

রাষ্ট্রপতি বলেন, “মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তচ্যুত প্রায় ১১ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। মিয়ানমারে যে  গণহত্যা এবং গুরুতর মানবাধিকার লঙ্ঘনের ঘটনা ঘটেছে, তা জাতিগত নির্মূলের একটি 'টেক্সট বুক এক্সাম্পল’ এবং ভয়াবহ মানবিক বিপর্যয় হিসাবে অভিহিত করা হয়েছে।”

তিনি বলেন, “রোহিঙ্গারা জোরপূর্বক তাদের পূর্বপুরুষের ভিটা থেকে বিতাড়িত হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়। মানবিক কারণে বাংলাদেশ মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা তাদের জনগণকে আশ্রয় দিয়েছে এবং খাদ্য,চিকিৎসা সহ সব ধরনের সুযোগ-সুবিধা প্রদান করছে। বাংলাদেশ এ সমস্যার একটি শান্তিপূর্ণ সমাধান চায়।“

একইসঙ্গে রোহিঙ্গারা যাতে নিরাপদে ও মর্যাদার সঙ্গে নিজ ভূমিতে ফিরে যেতে পারে সেজন্য সিআইসিএসহ সংশ্লিষ্টদের সমর্থন ও সহযোগিতা চান রাষ্ট্রপতি।

সিআইসএ সদস্যদের উদ্দেশে তিনি বলেন, “আমাদের একসাথে কাজ করতে হবে, যাতে এ অঞ্চলের বিদ্যমান বিবাদ, এশিয়ার নিরাপত্তা ও সহযোগিতার সাথে সম্পর্কিত সমস্যাগুলোর সমাধান করা যায়।” 

উল্লেখ্য, মিয়ানমারের রাখাইনে সেনাবাহিনীর দমন অভিযান শুরুর পর ২০১৭ সালের অগাস্ট থেকে সাত লাখের বেশি রোহিঙ্গা পালিয়ে এসে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়। তার আগে গত কয়েক দশকে এসেছে আরও চার লাখ রোহিঙ্গা।

এ ছাড়াও সম্মেলনে বর্তমান সময়ে এশিয়ার দেশগুলোর বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরে রাষ্ট্রপতি বলেন, “এশিয়ার দেশগুলো বর্তমানে জোরপূর্বক দেশান্তর, আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসবাদ এবং উগ্রবাদের মত নানা সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছে। এসব সমস্যার সমাধানের জন্য সমন্বিত উগ্যোগ নিতে হবে।

তিনি আরো বলেন, “এশিয়ার নিরাপত্তা বর্তমানে সুরক্ষিত নয়, কারন নিয়মবর্হিভূত অভিবাসন,মাদক চোরাচালান,সীমানা বিরোধ, জাতিগত দ্বন্দ্ব, বিছিন্নতাবাদ,অর্থনৈতিক সমস্যা এবং জলবায়ু পরিবর্তনের মত সমস্যা এখানে দৃশ্যমান।”

আরও পড়ুন
জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত